শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:২৯ অপরাহ্ন

টুইন টাওয়ারে হামলায় প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে এফবিআই

টুইন টাওয়ারে হামলায় প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে এফবিআই

ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার টুইন টাওয়ারে হামলায় (নাইন-ইলেভেন হামলা) সৌদি সরকারের কোনো সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায়নি। শনিবার রাতে নাইন-ইলেভেন হামলার  ১৬ পৃষ্ঠার এই তদন্ত নথি প্রকাশ করেছে মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআই। সেই নথিতে এ তথ্য উল্লেখ করা হয়েছে।যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন নাইন-ইলেভেন হামলায় নিহতদের স্বজনদের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, সেই অনুষ্ঠান শেষ হওয়ার ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই প্রকাশিত হলো এই নথি।

২০০১ সালে যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার টুইন টাওয়ার ও সামরিক বাহিনীর সদর দফতর পেন্টাগনে ভয়াবহ বিমান হামলা হয়েছিল। সেই হামলায় সম্পূর্ণ গুঁড়িয়ে যায় যুক্তরাষ্ট্রের অন্যতম ঐতিহ্যবাহী বহুতল এই ভবনদ্বয়, তাৎক্ষনিকভাবে মারা যান প্রায় ৩ হাজার মানুষ এবং আহত হন ৬ হাজারেরও বেশি।

ওই হামলায় আর্থিক ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ছিল ১ হাজার কোটি ডলারেরও বেশি। তবে সবচেয়ে যেটি বড় ব্যাপার- ‍যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে  এর আগে এ ধরনের কোনো হামলা ঘটেনি।টুইন টাওয়ারে হামলার পর তার দায় স্বীকার করেছিল সৌদি আরবভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী আল কায়েদা নেটওয়ার্ক।

হামলার পর প্রাথমিক তদন্তে দুই হামলাকারীর নাম-পরিচয় উদ্ধার করতে পেরেছিল এফবিআই। তাদের নাম- নাওয়াফ আল হাজমি ও খালিদ আল মিহধার। ২০০০ সালে তারা সৌদি আরব থেকে যুক্তরাষ্ট্রে আসেন এবং ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের সান ডিয়েগো শহরের একটি অ্যাপার্টমেন্টে ওঠেন।

সৌদি আরবের প্রতি সন্দিহান হওয়ার আরও একটি কারণ হলো- নাওয়াফ ও খালিদের জন্য যিনি আবাসনের বন্দোবস্ত করেছিলেন- সেই ওমর আল বেইউমি নিজে একজন সৌদি নাগরিক। দক্ষিণ ক্যালিফোর্নিয়ায় তার একটি হালাল রেস্তোঁরা আছে এবং সৌদি সরকারের সঙ্গে তার যোগাযোগও রয়েছে।এদিকে, হামলায় নিহতদের আত্মীরা বছরের পর বছর ধরে তদন্তের ফলাফল প্রকাশের দাবি জানিয়ে আসছিলেন; কিন্তু তাদের এই দাবিতে কাজ না হওয়ায় এ দাবির পক্ষে নিউইয়র্কের একটি আদালতে মামলাও করেছেন তারা।

ফলে, এই নিয়ে বেশ চাপে ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট। গত সপ্তাহে তিনি দেশের আইন ও বিচার বিষয়ক মন্ত্রণালয়কে আগামী ছয় মাসের মধ্যে তদন্তের ফলাফল প্রকাশের নির্দেশ দেন। তার সেই নির্দেশের এক সপ্তাহের মধ্যেই তা ঘোষণা করল এফবিআই।

সৌদি আরব অবশ্য বরবারই ৯/১১ হামলার সঙ্গে সংশ্লিষ্টতা অস্বীকার করে আসছে। গত সপ্তাহের বুধবার ওয়াশিংটনে সৌদি দূতাবাস এ সম্পর্কিত এক বিবৃতিত দিয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে, ‘৯/১১ বা এ জাতীয় কোনো হামলার সঙ্গে সৌদি আরবের সরকার বা সরকারের কোনো উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা জড়িত- এটি নির্জলা অসত্য।সৌদি আরব এই অভিযোগ, সন্দেহ ও অপবাদ থেকে চিরদিনের জন্য মুক্তি চায়।

সূত্র : এপি


Comments are closed.

© All rights reserved © 2017 24ghontanews.com
Desing & Developed BY ThemeForest