রবিবার, ০৯ মে ২০২১, ০৩:৩১ অপরাহ্ন

নিজের বিয়ে নিজেই ঠেকালেন দশম শ্রেণীর শিক্ষার্থী

নিজের বিয়ে নিজেই ঠেকালেন দশম শ্রেণীর শিক্ষার্থী

ইউএনওকে ফোন করে নিজের বিয়ে নিজেই ঠেকালেন লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার দশম শ্রেণির এক ছাত্রী।

জানা যায়, উপজেলার সিঙ্গিমারী ইউনিয়নের উত্তর ধুবনীগ্রামের মোঃ সাইরুদ্দিন তার মেয়ে শাহিনা আক্তারকে শুক্রবার রাতে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর পূর্বক বাল্যবিয়ে দেয়ার চেষ্টা করে। পরে বাড়ি থেকে পালিয়ে বান্ধবীর বাড়িতে আশ্রয় নিয়ে ইএনওকে ফোন করেন শাহিনা আক্তার।

খবর পেয়ে ইউএনও সামিউল আমিন হাতীবান্ধা থানার ওসি এরশাদুল আলমকে সাথে নিয়ে প্রথমে শাহিনা আক্তারকে তার বান্ধবীর বাড়ি থেকে উদ্ধার করেন এবং পরে ইউএনও নিজেই শাহিনা আক্তারকে সাথে নিয়ে তার বাবা মায়ের বাড়িতে হাজির হন।

এ সময় তার বাবা সাইরুদ্দিনের কাছ থেকে একটি মুচলেকা লিখে নিয়ে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য আইয়ুব আলীর জিম্মায় শাহিনা আক্তারকে তুলে দেয়। শাহিনা আক্তার হাতীবান্ধা আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণির ছাত্রী।

হাতীবান্ধার ইউএনও সামিউল আমিন সাংবাদিকদের বলেন, রাতে খবর পাওয়া মাত্র আমি ওই স্কুলের প্রধান শিক্ষকের সাথে কথা বলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়েছি। সকালে শাহিনা আক্তারকে তার বান্ধবীর বাড়ি থেকে উদ্ধার করে নিজ বাড়িতে নিয়ে গিয়ে বাল্যবিয়ের সম্পর্কে বাবা মায়ের সাথে কথা বলে শাহিনাকে তাদের কাছে দিয়ে এসেছি। শাহিনার বাবা মা মুচলেকা দিয়েছেন ১৮ বছরের আগে মেয়ের বিয়ে দিবেন না। যদি তারা এই মুচলেকা ভঙ্গ করেন তাহলে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


Comments are closed.

© All rights reserved © 2017 24ghontanews.com
Desing & Developed BY ThemeForest