বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ০৬:৩৪ অপরাহ্ন

আমরা ডিবি’ বলেই ‘টার্গেট’কে গাড়িতে তুলে নিতো তারা

আমরা ডিবি’ বলেই ‘টার্গেট’কে গাড়িতে তুলে নিতো তারা

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থেকে একটি ডাকাতি চক্রের মূলহোতাসহ তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ডিবি জানিয়েছে, আসামিরা নিজেদের মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন ব্যক্তিকে টার্গেট করে তাদের গাড়িতে তুলে টাকা-পয়সাসহ মূল্যবান জিনিসপত্র লুটে নিতো।

গ্রেফতার তিনজন হচ্ছেন- বারেক (৩৭), আবুল কাশেম ওরফে জীবন ব্যাপারী (৫৬) ও স্বপন আকন্দ (৪০)। গ্রেফতারের সময় তাদের কাছ থেকে একটি দেশীয় পিস্তল, এক রাউন্ড পিস্তলের কার্তুজ, একটি ডিবি লেখা জ্যাকেট এবং একটি ওয়্যারলেস সেট উদ্ধার করা হয়।

মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে ডিবির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার তিনজনকে গ্রেফতারের বিস্তারিত তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, তথ্য-প্রযুক্তির সহায়তায় ও গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে ডিবি পরিচয়ে একটি সংঘবদ্ধ ডাকাত চক্র ডাকাতি করছে মর্মে তথ্য পায় গোয়েন্দা বিভাগ। এমন তথ্যের ভিত্তিতে সোমবার রাতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে যাত্রাবাড়ীর কাজলা এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

আসামিদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের ভিত্তিতে ডিবির এই কর্মকর্তা জানান, গ্রেফতারকৃতরা প্রাইভেটকারযোগে ভুয়া ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে ঢাকা ও ঢাকার আশপাশ এলাকার বিভিন্ন স্থানে ব্যাংক কিংবা প্রতিষ্ঠানে আগত টাকা বহনকারী কিংবা টাকা উত্তোলনকারী ব্যক্তিকে টার্গেট করতো।

টার্গেটকৃত ব্যক্তিকে অবৈধ অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে কিংবা মাদক দিয়ে মামলায় ফাঁসিয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে গাড়িতে উঠিয়ে নিয়ে টাকা-পয়সা ও মূল্যবান স্বর্ণালঙ্কার ছিনিয়ে নিয়ে নির্জন স্থানে ফেলে পালিয়ে যেতো।

গ্রেফতার বারেকের বিরুদ্ধে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন থানায় আটটি মামলা, আবুল কাশেম ওরফে জীবনের বিরুদ্ধে সাতটি এবং স্বপন আকন্দের বিরুদ্ধে নয়টি মামলার তথ্য মিলেছে।

তাদের বিরুদ্ধে যাত্রাবাড়ী থানায় ডাকাতির প্রস্তুতি ও অস্ত্র আইনে নতুন করে দুটি মামলা করা হয়েছে বলে জানান এ কে এম হাফিজ আক্তার।


Comments are closed.

© All rights reserved © 2017 24ghontanews.com
Desing & Developed BY ThemeForest