শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৩:৩৬ অপরাহ্ন

চলতি মাসে একাধিক শৈত্যপ্রবাহ

চলতি মাসে একাধিক শৈত্যপ্রবাহ

সারা দেশে স্বাভাবিক শীত থাকলেও উত্তরাঞ্চলসহ কিছু এলাকায় বইছে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ। যা অব্যাহত থাকতে পারে। ফলে ওই এলাকার মানুষকে কষ্ট পোহাতে হচ্ছে। ডিসেম্বর ও জানুয়ারি মাসে স্বাভাবিকভাবেই দেশে শীতকাল থাকে। নতুন বছরের আগমন ঘটে থাকে শীতের মধ্য দিয়েই। তবে এবার দেশের প্রায় এক-চতুর্থাংশ জেলার ওপর দিয়ে বয়ে যাওয়া শৈত্যপ্রবাহের মধ্য দিয়ে ২০২০ সালের বিদায় এবং ২০২১ সালের আগমন ঘটেছে। আবহাওয়া অধিদপ্তরের পূর্বাভাসে এমনটাই জানানো হয়েছে। দেশের উত্তর জনপদে শীতের প্রকোপ বাড়ছে।

যারা নিম্নজীবী ও খুব সকালে যাদের কাজের সন্ধানে বের হতে হয় তাদের বেশি দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে। কাজে যেতে না পারায় পরিবার-পরিজন নিয়ে বিপাকে পড়েছেন তারা। বৃদ্ধ ও শিশুরা নানা ধরনের রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। জানুয়ারিতে সারা দেশে একাধিক মাঝারি থেকে তীব্র শৈত্যপ্রবাহ আসবে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

আবহাওয়াবিদ মো. আরিফ হোসেন বলেন, উত্তরের কয়েকটি জায়গায় শীতের মৌসুমে বরাবরই তাপমাত্রা তুলনামূলকভাবে কম থাকে। আরো দুয়েক দিন কয়েকটি জয়গায় মৃদু শৈত্যপ্রবাহ থাকবে হয়তো। এখন দেশের অধিকাংশ জায়গায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা বাড়ছে। এ অবস্থা কিছু দিন বহাল থেকে ফের একটু তাপমাত্রা কমতে পারে। জানুয়ারিতে তো সাধারণত শীতের প্রকোপ তুলনামূলক বেশি থাকে। গত সপ্তাহ জুড়ে থেকে চলা শৈত্যপ্রবাহ মাঘ মাসের শুরুতে এসে মৃদু থেকে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহে পরিণত হয়েছে। দেশের বিশাল অঞ্চল জুড়ে এখন এই শৈত্যপ্রবাহের প্রকোপ চলছে। পূর্বাভাস বলছে, পুরো জানুয়ারি জুড়েই থাকতে পারে শৈত্যপ্রবাহ।

অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ আব্দুর রহমান খান বলেন, আজ তাপমাত্রা পরিবর্তনের সম্ভাবনা কম। একইভাবে শৈত্যপ্রবাহের মাত্রা ও বিস্তারও প্রায় একই থাকতে পারে। জানুয়ারির প্রথম কয়েক দিন তাপমাত্রা ১-২ ডিগ্রি কমে যেতে পারে। তখন শীতের তীব্রতাও কিছুটা বাড়বে। এরপর পাঁচ-ছয় দিন আবার তাপমাত্রা বেড়ে যেতে পারে। তখন দুই-একটি স্থান ছাড়া সব স্থান থেকেই শৈত্যপ্রবাহ দূরীভূত হতে পারে। গতকাল সন্ধ্যা ৬টায় পূর্বাভাসে অধিদপ্তর জানিয়েছে, আজ অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারা দেশে আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে। শেষ রাত থেকে সকাল পর্যন্ত সারা দেশের নদী অববাহিকার কোথাও কোথাও মাঝারি থেকে ঘন এবং দেশের অন্যত্র হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে। সারা দেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

গতকাল শুক্রবার সকাল ৯টা থেকে ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, শ্রীমঙ্গল, নওগাঁ, দিনাজপুর, তেঁতুলিয়া, ডিমলা, রাজারহাট ও চুয়াডাঙ্গা অঞ্চলগুলোর ওপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা অব্যাহত থাকতে পারে। সারা দেশের দিন ও রাতের তাপমাত্রা অব্যাহত থাকতে পারে। সারা দেশের আবহাওয়া সাধারণত শুষ্ক থাকতে পারে। মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের নদী অববাহিকার কোথাও কোথাও মাঝারি থেকে ঘন কুয়াশা এবং দেশের অন্যত্র হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে।

আবহাওয়া চিত্রের সংক্ষিপ্তসারে বলা হয়েছে, উপমহাদেশীয় উচ্চ্চাপ বলয়ের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে।


Comments are closed.

© All rights reserved © 2017 24ghontanews.com
Desing & Developed BY ThemeForest