মঙ্গলবার, ০২ মার্চ ২০২১, ০১:৩৭ পূর্বাহ্ন

হত্যা করে লাশ মাটি চাপা

হত্যা করে লাশ মাটি চাপা

মোঃ এজাজ আহম্মেদ,রংপুর ব্যুরো: পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলায় নিখোঁজের ৪ দিন পর ফাহিদ হাসান সিফাত (১৮) নামে এক যুবকের মাটি চাপা অবস্থায় লাশ উদ্ধার করেছে র‍্যাব-১৩।এ ঘটনায় প্রধান সন্দেহভাজন মতিউর রহমানসহ ৪ জনকে আটক করা হয়েছে।

গতকাল শনিবার (৯ জানুয়ারি) দুপুরে উপজেলার রাধানগর ইউনিয়নের ছোটদাপ এলাকায় ধানক্ষেত থেকে মাটি চাপা অবস্থায় লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত সিফাত একই এলাকার শফিকুল ইসলামের ছেলে। এবং দিনাজপুর আদর্শ কলেজের ২য় বর্ষের ছাত্র।

র‍্যাব-১৩ সূত্রে জানায়,
গত ৪ জানুয়ারি (সোমবার) রাত থেকে নিখোঁজ ছিলো সিফাত। পরে তার বাবা শফিকুল ইসলাম ছেলের নিখোঁজে থানায় মামলা শেষে অভিযোগটি আমাদের জানায়। অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্তে একই এলাকার প্রতিবেশী মতিউর রহমানকে আটক করা হয়। এবং তার জবানবন্দিতে আরো ৩জন কে আটক করা হয়। এদিকে প্রাথমিক জিগ্যাসাবাদে প্রধান সন্দেহভাজন মতিউরের দেয়া তথ্যমতে র‍্যাব স্থানীয় প্রশাসন ও পুলিশের উপস্থিতে লাশটি উদ্ধার করা হয়। একই সা্থে হত্যায় ব্যাবহার করা কোদাল, মোবাইল ফোনের সিম, বিভিন্ন আলামত উদ্ধার করা হয়।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়,
৪ জানুয়ারি রাতে বেটমিন্টন খেলার জন্য বাড়ি থেকে বের হয়। এদিকে অনেক রাত হওয়ার পরেও বাড়ি না ফেরায় আত্বীয়সহ তার মেসে খোঁজখবর নেয়া হয়। কিন্তু তার পরেও তার কোন খবর পাওয়া যায় নি। এদিকে ৫ জানুয়ারি (মঙ্গলবার) রাতে সিফাতের ফোন থেকে অপহরণকারীরা তার বাবাকে ফোন করে ৫ লক্ষ টাকা দাবী করে। এবং মুক্তিপন না দিলে ছেলেকে মেরে ফেলার হুমকি প্রদান করে। পরবর্তীতে ৬ জানুয়ারি (বুধবার) আবারো দুপুরে ১২টায় ফোন দিলে বিকাশের মাধ্যমে ৮ হাজার টাকা দেয় সিফাতের বাবা।

রংপুর র‍্যাব-১৩ অধিনায় রেজা আহম্মেদ ফেরদৌস সাংবাদিকদের জানান,অপহরণের পর অপহরণকারীরা কলেজ ছাত্র সিফাতকে হত্যা করে তার লাশ মাটি চাপা দিয়ে রাখে। আমরা সিফাতের বাবার অভিযোগের পেক্ষিতে বিষয়টি তদন্ত করে ঘটনার সাথে জড়িতদের স্বীকারোক্তিতে সিফাতের লাশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এবিষয়ে নিহতের পরিবার মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে।

আটোয়ারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইজার উদ্দীন বিষয়টি নিশ্চত করেন।


Comments are closed.

© All rights reserved © 2017 24ghontanews.com
Desing & Developed BY ThemeForest